আদি ছবি

এই ছবিটার অন্তত ৩ টা ভার্সন অনলাইনে ছড়ানো আছে। সবচে বেশি ছড়ানো ভার্সনে বেগম সাহেবারা সবাই বোরখা-হেজাবে পুরাটাই ঢাকা, কেবল চোখ আর হাতের আঙুল দেখা যায়। ২০০৬ সাল থেকেই অনলাইনে এই ছবিটা ছড়ায়। কিছুদিন নজরে পড়ে না, আবার ভাইরাল হয়। ২০০৯ সালের পপুলার হিন্দি সিনেমা ‘থ্রি ইডিয়টস্’-এর একটা সিনেও ছবিটা রাখা হয়েছে।

এই ভার্সনটাই সবচে বেশি পাওয়া যায় অনলাইনে; এখানে ২০০৮ সালের ২৮ জুলাইয়ের একটা ব্লগ পোস্ট থেকে নেয়া হয়েছে।

(২০০৮ সালের ২৮ জুলাই) ব্লগ পোস্টের লিংক: https://www.tapatalk.com/groups/theerant/why-americans-don-t-immigrate-to-arab-countries-t7790.html

 

এর আগে, ২০০৬ সালের ২০ নভেম্বরের এক ব্লগ পোস্টে ছবিটা দেখা যায়, এই ভার্সনে বেগম সাহেবাদের চোখও দেখা যায় না। অনলাইন তালাশে এই ভার্সনটা উপরেরটার চাইতে কম, কিন্তু আসল ছবির পয়লা এডিটিং পাওয়া যায় এই ভার্সনেই। পোস্ট করেছেন Sharida Mohamedjoesoef নামে একজন ব্লগার। ছবির হেডিং দিয়েছেন উনি, “Say Cheese …Arab style?”। ছবির নিচে জানিয়েছেন, “Got this picture through my cousin in Surinam. Looks like it was taken in Downtown Beirut or, a serious case of Adobe Photoshop.”।

আসল ছবির পয়লা এডিটিং

(২০০৬ সালের ২০ নভেম্বর) ব্লগ পোস্টের লিংক: http://sharida-mohamedjoesoef.blogspot.com/2006/11/

অনলাইনে ছবিটার আদি রেফারেন্স পাওয়া গেছে Alex Santoso নামে একজন ব্লগারের এক পোস্টে, ২০০৬ সালের ২১ জুলাই শুক্রবার এটা পোস্ট করা হয়েছে, । সবচেয়ে আগের ভার্সন এইটাই। এই ভার্সনের হেডিং হলো, “Say Cheese.”। ছবি নিয়ে Alex Santoso আরো লিখেছেন, “অথবা না। হাসার কোন মানে হয় কি? মাথা থেকে পাঁ ঢাকা থাকলে তো হাসায় কোনই ফারাক পয়দা হয় না আলবত! (Or Not. What’s the point? Smiling obviously makes absolutely no difference when you’re covered from head to toe!)”। এই ব্লগার ছবির সোর্স হিসাবে ব্লগস্পটের একটা লিংক দিয়েছেন (লিখেছেন: Found at Factum, লিংক: http://factum.blogspot.com/2006/07/smile.html ), কিন্তু এই লিংকে ছবিটা নেই। এই ভার্সনে বাম পাশের বেগমের মুখ-চোখ পুরা খোলা, হেজাবে ঢাকা নেই। হেজাবে মুখ ঢাকা ৪ জনের সবারই চোখ দেখা যায়।

আদি ছবি

ব্লগ পোস্টের লিংক: http://www.neatorama.com/2006/07/21/say-cheese/

 

অনলাইনে ছবি বা লেখার সত্যমিথ্যা ঠিক ঠিক বলা কঠিন, সবকিছুই এডিট করা যায়, প্রকাশের তারিখও। এই ছবির বেলায় এমনকি আসল ছবি বা ছবির লোকজনের পরিচয় বা ফটোগ্রাফারের নাম পাওয়া যায়নি। তবু ফ্যাক্টওয়াচের সিদ্ধান্ত হলো, ২০০৬ সালের ২১ জুলাইয়ের ছবিটাই আদি এবং আসল। ফ্যাক্টওয়াচের সিদ্ধান্তের গোড়ায় সবচেয়ে বড় কারণ, ২১ জুলাই www.neatorama.com ওয়েবসাইটে ছাপা ছবিতে ভিজিটরদের কমেন্ট।

একটা ব্লগপোস্টের সন-তারিখসহ প্রায় সবকিছুই পাল্টানো গেলেও ভিজিটরদের কমেন্টের তারিখ পাল্টানো কিছুটা কঠিন; খুবই দরকারি না হলে কমেন্টের তারিখ পাল্টাবার সম্ভাবনা কম। ২০০৬ সালের জুলাইয়ে এই ছবির পোস্টে ভিজিটরদের কমেন্টে বাম পাশের জনের মুখ খোলা আছে বলে জানা যাচ্ছে; ২১ তারিখেরই একটা কমেন্ট দেওয়া হলো নিচে:

mrgoodbar 21Jul06 3:09am 0

It is despicable the way women are treated in most of the Muslim world… at the same time if they WANT to wear a head-to-toe burqa then go for it. And props to the honey on the left for taking off the veil.

এই ছবি দেখে মানুষ কেন মজা পায় সেটাও বোঝা যায় আর কয়েকটা কমেন্টে। নিটোরমা.কম-এর ম্যানেজিং এডিটরের কমেন্ট যেমন:

Miss Cellania 21Jul06 6:46am 1

He might as well just download a photo and label it with his wives’ and daughter’s names.

বা আরেকজন ভিজিটরের কমেন্ট:

Monyet Miskin 21Jul06 3:42am 1

How are they going to know who’s in the picture?

এসব কমেন্টে কাকে বলে ‘ফটোগ্রাফ’ সেটাও পাওয়া যাচ্ছে আবছাভাবে; ফটোগ্রাফ যেন চেনার উপায়, মুখ দেখা না গেলে চেনা যাচ্ছে না পরে; তাই নিজের ছবিকে নিজের বলে প্রমাণও করা যাচ্ছে না।

কিন্তু ছবিটা ১০০{47e584cf7dccc8233e4e05281ae2fbfd78e50bb772fa1ff4e19682798b0f75ae} মজার হয়ে উঠতে পারছে না বাম পাশের জনের মুখ খোলা থাকায়; কারণ, মুখ দেখা যাচ্ছে বলে ওনাকে চেনা যাচ্ছে, নিজের ছবিকে নিজের বলে প্রমাণও করতে পারছেন উনি। পরে বাম পাশের জনের মুখও ঢেকে দেবার ভিতর দিয়ে তাহলে ছবিটা ১০০{47e584cf7dccc8233e4e05281ae2fbfd78e50bb772fa1ff4e19682798b0f75ae} মজার হয়ে উঠতে পারছে।

থ্রি ইডিয়টস্ (২০০৯) নামের হিন্দি সিনেমায় ছবিটার বানোয়াট ভার্সনের রেফারেন্স।

পরের ঘটনাগুলোতে দেখা যাচ্ছে, ১০০{47e584cf7dccc8233e4e05281ae2fbfd78e50bb772fa1ff4e19682798b0f75ae} মজার ছবি, মানে বোরকায় সবার মুখ ঢাকা ছবিটাই সবচে বেশি ভাইরাল হচ্ছে, এবং বার বার ফিরে আসছে, আসল ছবিটা নয়।

 

  • Read in English

Leave a Reply

fact-watch