স্টিভেন স্পিলবার্গের বানাচ্ছেন লেনিনের বায়োপিক, তাতে অস্কারজয়ী লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও হচ্ছেন লেনিন, ফেসবুকসহ অনলাইনে ছড়িয়ে পড়া এক পোস্টারে দাবি করা হচ্ছে তেমনটাই।

 

বেশ কিছু সাক্ষাৎকারে হলিউড তারকা লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও ভ্লাদিমির লেনিনের চরিত্রে অভিনয়ের আগ্রহ প্রকাশ করেছে। চলতি বছরের ২২ অক্টোবর সিনেমাকিচেন নামক একটি ফেসবুক পাতা থেকে লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিওর ছবি সম্বলিত “লেনিন” নামক একটি চলচ্চিত্রের পোস্টার আপলোড করা হয়। ছবির সাথে লেখা “স্টিভেন স্পিলবার্গের একটি ফিল্ম”। স্পিলবার্গ আর ডিক্যাপ্রিও একটি বায়োপিক তৈরি নিয়ে একসাথে কাজ করছে বলে ধারনা করা হয়। কিন্তু এটা কি লেনিনের?

অনলাইনে ছড়িয়ে পড়া পোস্টারে আরও বলা হয়, চলচ্চিত্রটি খুব শীঘ্রই সিনেমা হলে মুক্তি পেতে চলেছে। কিন্তু আসলেই কি তাই? ২০১৬ সালে জার্মান সংবাদপত্র ওয়েল্টকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও রাশিয়ার ইতিহাস নিয়ে আরও চলচ্চিত্র তৈরি করা প্রয়োজন বলে জানান। পাশাপাশি তিনি প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন, রহস্যঘেরা রাশপুটিন এবং ১৯১৭ সালে বলশেভিক বিপ্লব করে সোভিয়েত ইউনিয়নের প্রতিষ্ঠাতা ভ্লাদিমির লেনিনের চরিত্রে অভিনয়ের আগ্রহ প্রকাশ করেন। তারও আগে ২০১০ সালে তিনি জোসেফ স্টালিনের চরিত্রে অভিনয়ের ব্যাপারেও আগ্রহ দেখিয়েছিলেন।

ওয়েল্টে ডিক্যাপ্রিওর সাক্ষাৎকার প্রকাশিত হবার পর রাশিয়ার সবচেয়ে পুরাতন ফিল্ম স্টুডিও “লেনফিল্ম” ডিক্যাপ্রিওকে লেনিনের চরিত্রে দেখাতে আগ্রহ প্রকাশ করে। লেনফিল্মের প্রেস সেক্রেটারি ভালেরি কারপোভ এক সাক্ষাৎকারে ডিক্যাপ্রিও আর লেনিনের চেহারায় অনেক মিল আছে বলে জানান।

আরেক রাশিয়ান পরিচালক, চিত্রনাট্যকার এবং প্রযোজক ভ্লাদিমির বোর্টকো জানান, ডিক্যাপ্রিও আগ্রহী হলে সেই চলচ্চিত্রের পরিচালক হবার জন্যে তিনি প্রস্তুত। তবে ডিক্যাপ্রিওকে লেনিন চরিত্রে দেখা যেতে পারে, এমন গুঞ্জন ছড়িয়ে পড়লে তাতে ব্যাপক নাখোশ হয় সেন্ট পিটার্সবার্গের কম্যুনিস্ট পার্টি। একটি পার্টিতো রীতিমতন বিক্ষোভ করে আগুনে পোড়ায় ডিক্যাপ্রিও ছবি।

লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও ২০১৬ সালে লেনিনের চরিত্রে অভিনয়ের আগ্রহ প্রকাশের বহু আগেই আরেকজন রাশিয়ান চিত্রনাট্যকার আলেক্সান্ডার বোরোডিয়ানস্কি তাকে “দ্যা ব্রেইন অফ লেনিন” নামক একটি কমেডি চলচ্চিত্রে লেনিনের চরিত্রে রাখতে আগ্রহ প্রকাশ করে। চলচ্চিত্রটি পরবর্তীতে আর তৈরি করা হয়নি।

লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিওর ছবিসম্বলিত লেনিন চলচ্চিত্রের পোস্টারটির উৎস খুঁজতে অনুসন্ধান চালায় ফ্যাক্টওয়াচ। রিভার্স ইমেজ সার্চ ইঞ্জিন টিনআইয়ের সাহায্যে ২০১৭ সালের ২২শে অক্টোবর রাশিয়ান সাংবাদিক ইভান সাফরোনোভের টুইটারে চলচ্চিত্রটির বেশ কিছু পোস্টারের সন্ধান পাওয়া যায়। এসব পোস্টারে ডিক্যাপ্রিওর পাশাপাশি রবার্ট ডাউনি জুনিয়রকে বলশেভিক চেয়ারম্যান ইয়াকোভ সভার্ডলোভ, ড্যানিয়েল রেডক্লিফকে লেনিনের প্রতিদ্বন্দ্বী লিওন ট্রোটস্কি এবং ফ্রান্সোইস আর্নাউডকে জোসেফ স্টালিনের ভূমিকায় দেখা যায়। সেখানেও চলচ্চিত্রটি স্টিভেন স্পিলবার্গ তৈরি করেছে বলে জানানো হয়। তবে চলচ্চিত্রটি মুক্তি পেয়েছে নাকি মুক্তি পাবে সে সম্পর্কে স্পষ্টভাবে কিছু বলা হয়নি।

পোস্টার ছড়িয়ে পড়লেও চলচ্চিত্রটি মুক্তি পেয়েছে বা পাবে ভরসা করার মতো কোনো খবর পাওয়া যায়নি কোথাও। পোস্টারে থাকা হলিউড তারকাদের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের প্রোফাইল বা স্টিভেন স্পিলবার্গের প্রোফাইলেও নেই এ সংক্রান্ত কোনো তথ্য। তবে জনপ্রিয় বিনোদনভিত্তিক ওয়েবসাইট ভ্যারাইটির প্রতিবেদন অনুযায়ী, ডিক্যাপ্রিও এবং স্পিলবার্গ যুক্তরাষ্ট্রের ১৮তম প্রেসিডেন্ট ইউলিসেস এস. গ্রান্টের একটি বায়োপিক তৈরি করবে।

অনলাইনে ব্যাপক অনুসন্ধানের পরেও ফ্যাক্টওয়াচ দল লেনিন নামক কোনো চলচ্চিত্রের সাথে স্পিলবার্গ ও ডিক্যাপ্রিওর সংশ্লিষ্টতা নিয়ে কোনো বিশ্বাসযোগ্য তথ্য পায়নি। তাই এটা বলাই যায় যে, ছড়িয়ে পড়া পোস্টারগুলি ভুয়া।

 

  • Read in English

Total
46
Shares

Leave a Reply

fact-watch